Wednesday, July 24, 2024
আন্তর্জাতিক

‘চারের দশকে বাংলাদেশে ২৮ শতাংশ সংখ্যালঘু ছিল, এখন তা কমে মাত্র ৯ শতাংশ’

কলকাতা ট্রিবিউন ডেস্ক: বাংলাদেশের কুমিল্লায় একটি দুর্গাপুজো মণ্ডপে কোরআন পাওয়ার অভিযোগে কুমিল্লা, ঢাকা, ফেনী, কিশোরগঞ্জ, চাঁদপুর-সহ বাংলাদেশের বিভিন্ন অঞ্চলে মন্দির ও পুজোমন্ডপে হামলার ঘটনা ঘটেছে। বুধবার থেকে শুরু হওয়া এই ঘটনায় এখনও পর্যন্ত অন্তত ৬ জনের মৃত্যু হয়েছে। আহত হয়েছেন কয়েক শ’ মানুষ।

প্রতিবাদে এই ঘটনার প্রতিবাদে রবিবার ঢাকায় অবস্থিত মার্কিন দূতাবাসের সামনে বিক্ষোভ দেখালো বাংলাদেশি হিন্দু সংগঠনের সদস্যরা। এ সময় মার্কিন হিন্দু সুরক্ষা সংগঠন হিন্দুপ্যাক্টের ডিরেক্টর (US-based Hindu advocacy group HinduPACT) উৎসব চক্রবর্তী (Utsav Chakrabarti) বলেছেন, ‘এটা অত্যন্ত আতঙ্কের বিষয় যে নোয়াখালীতে অবশিষ্ট কিছু হিন্দু রয়েছে। তাঁদের ওপরেও হামলা হচ্ছে।’

উৎসব চক্রবর্তী বলেন, ‘১৯৪৬ সালের অক্টোবরে এই নোয়াখালীতেই পাকিস্তানপন্থী ইসলামি মৌলবাদীরা ১২ হাজার হিন্দুকে খুন করেছিল। ৫০ হাজারের বেশি হিন্দুকে জোরপূর্বক ধর্মান্তরিত করা হয়েছিল। সেই ঘটনার ৭৫ বছর পরে একই দৃশ্য দেখা গেল।’

উৎসব চক্রবর্তীর দাবি, বাংলাদেশে ১৯৪০ সালের দিকে যেখানে ২৮ শতাংশ সংখ্যালঘু ছিল, তা এখন নেমে এসেছে মাত্র ৯ শতাংশে। বারবার হিন্দুদেরকে টার্গেট করা হচ্ছে বলেও দাবি করেন তিনি। Source: India Today

Bangladesh minority population 28 per cent in the 1940s to nine per cent now

Also Read: