Saturday, June 15, 2024
FEATUREDLatestরাজ্য​

একজনও হিন্দু শরণার্থীকে দেশ ছাড়তে হবে না: অমিত শাহ

কলকাতা: মঙ্গলবার কলকাতায় এসে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহ জানালেন, বাংলার সমস্ত শরণার্থীদের, বিশেষ করে হিন্দু শরণার্থীদের কাউকেই ভারত সরকার দেশ ছাড়া করবে না। স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, একজনও হিন্দু শরণার্থীকে দেশ ছাড়া করা হবে না। বাংলায় একজনও হিন্দু, বৌদ্ধ, শিখ, জৈন, খ্রিস্টান শরণার্থীদের এনআরসি করে বিতাড়িত করা হবে না। এনআরসি চালু করার আগে দেশে নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল আনা হবে।

অমিত শাহের সাফ হুঁশিয়ারি তৃণমূল বিরোধিতা করলেও নাগরিকত্ব সংশোধনী বিল আনা হবেই। এমন স্পর্শকাতর বিষয় নিয়ে রাজনীতি করায় রাজ্যের শাসকদল তৃণমূলের প্রতিবাদকে ‘কুমিরের কান্না’ বলে অভিহিত করেন তিনি।

অমিত শাহ বলেন, এনআরসি নিয়ে বাংলায় মানুষকে ভুল বোঝাচ্ছে তৃণমূল। বিজেপি কর্মীদের বলছি, আপনারা বাড়ি বাড়ি গিয়ে মানুষকে বোঝান। হিন্দু, বৌদ্ধ, জৈন, খ্রিস্টান শরণার্থীদের চিরকালের জন‌্য ভারতের নাগরিকত্ব দেওয়া হবে। এজন্য প্রথমে নাগরিকত্ব বিল আনা হবে, তারপরেই এনআরসি কার্যকর করে অবৈধ অনুপ্রবেশকারীদের তাড়ানো হবে।

শরণার্থীদের উদ্দেশে অমিত শাহ বলেন, নরেন্দ্র মোদী সরকার নাগরিকত্ব বিল‌ নিয়ে আসবে। আর তারপর ভারতের মাটিতে আমার যেমন অধিকার, আপনাদেরও তেমনই থাকবে। উল্লেখ্য, ২০১৯ লোকসভা নির্বাচনের পর এই প্রথম পশ্চিমবঙ্গে আসলেন অমিত শাহ। তার কলকাতা সফর ঘিরে সরগরম বঙ্গ রাজনীতি।

প্রসঙ্গত, অসমে এনআরসির চূড়ান্ত তালিকা থেকে ১৯ লাখেরও বেশি মানুষ তালিকা থেকে বাদ পড়েছেন। এনআরসির তীব্র বিরোধিতা করেছেন তৃণমূল সুপ্রিমো মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এনআরসি আতঙ্কে রাজ্যে এখনও পর্যন্ত ১১ জনের মৃত্যুর খবর জানা গেছে। বিজেপির অভিযোগ, তৃণমূল ইচ্ছাকৃতভাবে রাজ্যে এনআরসি নিয়ে আতঙ্ক ছড়ানোর চেষ্টা করছে। তবে এবার অমিত শাহ এনআরসি নিয়ে বিজেপির অবস্থান পরিষ্কার করে দেওয়ায় শরণার্থীদের সমস্ত ভয় ও ভ্রান্ত ধারণার সমাপ্তি ঘটবে বলে মনে করছেন রাজনৈতিক বিশ্লেষকরা।