Monday, May 27, 2024
রাজ্য​

হুগলিতে দিলীপ ঘোষের গাড়িতে হামলা, মাথা ফাটল জয়ের

আরামবাগ: সভা সেরে ফেরার পথে হুগলিতে আক্রান্ত রাজ্য বিজেপির সভাপতি দিলীপ ঘোষ ও জয় বন্দ্যোপাধ্যায়। রাস্তার মাঝে একদল দুষ্কৃতী হামলা চালাল তাঁদের গাড়িতে। রবিবার বিকালের দিকে ঘটনাটি ঘটেছে হুগলি জেলার কৃষ্ণপুর এলাকায়। এদিন হুগলী জেলার চণ্ডীতলায় সভা ছিল বিজেপির। সেখানে উপস্থিত ছিলেনদিলীপ ঘোষ, বিজেপির জাতীয় সম্পাদক রাহুল সিনহা এবং জাতীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য জয় বন্দ্যোপাধ্যায়।

সভা সেরে ফেরার সময়েই হামলা চালানো হয় বিজেপি নেতাদের গাড়িতে। দিলীপ ঘোষের সঙ্গে নিরাপত্তারক্ষী থাকায় হামলার হাত থেকে রক্ষা পেয়ে গিয়েছেন তিনি। সভার শুরুতেই নিজের বক্তব্য সেরে অনেক আগেই ফিরে গিয়েছিলেন রাহুল সিনহা। শেষে থাকা জয় বন্দ্যোপাধ্যায়কেই পড়তে হয় হামলার মুখে। দুষ্কৃতীরা বাঁশ-লাঠি নিয়ে তাঁর গাড়িতে ভাঙচুর চালায়। ভেঙে দেওয়া হয় গাড়ির কাঁচ। হামলায় গুরুতর আহত হয়েছেন জয় বন্দ্যোপাধ্যায়। তাঁর মাথায় ইট দিয়ে আঘাত করা হয়েছে। হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন তিনি। যুব মোর্চা সম্পাদক প্রকাশ দাসও হামলায় গুরুতর জখম হয়েছেন।

এই হামলার ঘটনায় ইতিমধ্যেই তৃণমূল কর্মীদের দিকে অভিযোগের আঙুল তুলেছে স্থানীয় বিজেপি নেতৃত্ব। তাঁদের দাবি, এদিন অন্যান্য দল থেকে বহু মানুষ বিজেপিতে যোগদান করেন। সেই কারণেই বিজেপি নেতাদের উপরে হামলা চালিয়েছে তৃণমূল। স্থানীয় তৃণমূল নেতা শেখ আবদুল্লার নেতৃত্বে একদল দুষ্কৃতী তাঁদের উপর হামলা চালিয়েছে বলে অভিযোগ। যদিও এই হামলার অভিযোগ অস্বীকার করেছে স্থানীয় তৃণমূল কংগ্রেস নেতৃত্ব।

এই হামলার ঘটনার তীব্র নিন্দা করেছেন বিজেপি নেতা সায়ন্তন বসু। তাঁর অভিযোগ, এটি পূর্ব পরিকল্পিত ঘটনা। দিলীপ ঘোষকে খুনের উদ্দেশ্যেই হামলা চালানো হয়েছে। তবে উদ্দেশ্য সফল হয়নি। তবে জয় বন্দ্যোপাধ্যায় গুরুতর আহত হয়েছেন। প্রশাসনিক পদক্ষেপ নেওয়ার কথা জানিয়েছেন তিনি। ইতিমধ্যেই হামলার খবর কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রককে জানানো হয়েছে। সোমবার রাজ্য জুড়ে বিজেপি কর্মীরা এই হামলার প্রতিবাদে নামবে বলে জানিয়েছেন সায়ন্তন বসু।