Tuesday, May 21, 2024
দেশ

সূর্যতিলক কী, IIA বেঙ্গালুরু কীভাবে সম্পর্কিত? এর পিছনে বিজ্ঞান কী?

কলকাতা ট্রিবিউন ডেস্ক: আজ দেশজুড়ে মহা ধুমধামে পালিত হচ্ছে রাম নবমী। আজ রামলালার বৈজ্ঞানিক সূর্যতিলক অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়। বেলা ১২টা নাগাদ রামলালার কপাল থেকে ‘জ্যোতি’ বিচ্ছুরিত হবে। বেঙ্গালুরু ইন্ডিয়ান ইন্সস্টিউট অফ অ্যাস্ট্রো ফিজিক্স ও উত্তরাখণ্ডের রুরকির CBRI (Central Building Research Institute), বেঙ্গালুরুর অপটিক কোম্পানি এটি করছে। এই প্রযুক্তির ক্ষেত্রে প্রধান অবদান রয়েছে ইন্ডিয়ান ইনস্টিউট অফ অ্যাস্ট্রো ফিজিক্সের। 

সূর্যের কৌণিক অবস্থান দেখেই সূর্যতিলকের পরিকল্পনা করা হয়েছে। সূর্যরশ্মি একটি আয়নায় পড়বে। রামলালার গর্ভগৃহে একটি আয়নাকে এমন ভাবে বসানো হবে যাতে সূর্যরশ্মি তাতে প্রতিফলিত সোজা রামলালার কপালে এসে পড়ে। 

সূর্য তিলক বা সূর্য অভিষেক কী?

সূর্য পৃথিবীতে নেমে আসে ভগবান রামের কপালে কিচ্ছুক্ষণের জন্য সাজিয়ে তাকে উজ্জ্বল করে তুলতে। দেবতার কপালে সাবধানে সূর্যের রশ্মিকে উদ্দিষ্ট করার জন্য আলোকবিদ্যা ও মেকানিক্সের মিশ্রণের খেলা চলে। 

ইন্ডিয়ান ইনস্টিটিউট অফ অ্যাস্ট্রোফিজিক্স মন্দিরের বর্তমান কাঠামো অনুযায়ী গণনা করে এবং অপটিক্যাল সিস্টেম কে অপটিমাইজ করে। পুরো মন্দির সম্পূর্ণ হয়ে গেলে ৪টি আয়না এবং ৪টি লেন্সের পরিকল্পনা করা হয়। 

রাম লালার সূর্য তিলক এবার থেকে প্রতি বছর অনুষ্ঠিত হবে। এই বছর দুপুর থেকে শুরু করে ৩ মিনিট ধরে সম্পন্ন করা হয়েছে এই সূর্যাভিষেক।