Sunday, April 21, 2024
দেশ

জেলে ৪০ দিনে ৬ কেজি ওজন কমেছে ধর্ষক রাম রহিমের

মাত্র তিন মাস আগেও বিশাল সাম্রাজ্যের অধিকারী রাম রহিমের ছিল বিলাসবহুল জীবনযাপন, অগণিত ভক্ত। দুই নারীভক্তকে ধর্ষণের দায়ে হরিয়ানার রোহতকের সুনারিয়া জেলে কারাবাস শুরুর পর থেকেই ঠিকমতো ঘুম হচ্ছিল না ধর্মীয় প্রতিষ্ঠান ডেরা সাচ্চা সৌদার প্রধান গুরমিত রাম রহিম রহিম সিংয়ের। কারাগারে গিয়ে অন্য সাধারণ কয়েদিদের মতো পরিশ্রমও করতে হয়েছে তাঁকে। এসব মিলে গত ৪০ দিনে ধর্ষক বাবার ওজন কমেছে ৬ কেজি।

হরিয়ানা রাজ্যের রোহতক কারাগার সূত্রে জানা গিয়েছে, অাগস্টের শেষে রাম রহিম যখন জেলবন্দি হন, তখন তাঁর ওজন ছিল ৯০ কেজি। এখন কমে দাড়িয়েছে ৮৪ কেজি।

তার এই ওজন কমার নেপথ্যের কারণ হিসেবে দীর্ঘদিনের বিলাসবহুল সুখস্বাচ্ছন্দ্যের জীবন ভোগ করে এসেছেন, জেলে সে সব কিছুই মিলছে না। তাছাড়া যাঁর জন্য বিদেশ থেকে পানীয় জল আসত তাঁকে এখন জেলের জল পান করতে হচ্ছে, খেতে হচ্ছে জেলের খাবার।

কারাগার সূত্রে খবর, নিজের ডেরায় ঠান্ডা ঘরে বসে নিয়মিতভাবে যেসব এনার্জি ড্রিংক পান করতেন রাম রহিম, কারাগারে তা মিলছে না। এমনকি বিদেশ থেকে তার জন্য যে উন্নতমানের খাবার পানীয় জল আসত, তা-ও তিনি পাচ্ছেন না। কারাগারের অন্য কয়েদিদের মতোই পানীয় জল পান করতে হচ্ছে তাকে। এ ছাড়া কারা কর্তৃপক্ষের বরাদ্দকৃত চাষের জমিতেও প্রতিদিন কাজ করতে হচ্ছে রাম রহিমকে। অন্য বন্দিদের মতো তিনি শাকসবজি চাষ করছেন।

চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, শারীরিকভাবে রাম রহিম সুস্থ, কোনওরকম অসুস্থতার কথা জানা গেলে তাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হবে।