Thursday, May 30, 2024
রাজ্য​

চিটফান্ড, সারদা, ছবি আঁকা, সবই একটাই দরজায়: মোদী

ঠাকুরনগর: ঠাকুরনগর থেকেই বাংলায় লোকসভা ভোটের প্রচার শুরু করলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। কৃষক ঋণ মকুব থেকে শুরু করে সিন্ডিকেট ট্যাক্স, নাম না-করে রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ও তৃণমূল কংগ্রেসকে তীব্র আক্রমণ করলেন প্রধানমন্ত্রী।

মোদীর কথায়, পশ্চিমবঙ্গকে জগাই-মাধাই আর সিন্ডিকেট থেক মুক্ত করতে সব চেষ্টা করব। আপনাদের বিশ্বাসই আমাকে এগিয়ে যাওয়ার শক্তি জোগায়। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে উদ্দেশ্য করে তিনি বলেন, কখনও হেলিকপ্টার আটকানো, কখনও জমি না দেওয়া, দিদি এইসব খেলা আর কতদিন চলবে? আমাকেও গুজরাতে জেরা করা হয়েছিল। কিন্তু আমি কোনোদিন গুজরাত থেকে সিবিআইকে সরাইনি। আমি সম্মান করি। দিদি আপনি যদি ভুল করেননি, তাহলে ভয় পাওয়ার দরকার কী? কিসের ভয় পাচ্ছেন আপনি?

প্রধানমন্ত্রী বলেন, আমাকে গালি দেওয়ার একতাই কারণ, আমি দুর্ণীতি বন্ধ করতে চাইছি। চিটফান্ড, সারদা, ছবি আঁকা, সবই একটাই দরজায়। যারা একসময় একে-অপরকে জেল পাঠানোর বন্দোবস্ত করেছিল, তারাই আজ গলা মেলাচ্ছে। ছবিতে দেখবেন সবাই কীরকম ভয় পেয়েছে, কারও ছেলে, কারও ভাই, কারও ভাইপো অপরাধী।

মোদী বলেন, রাজ্যে কলেজে ভর্তি হতে গেলে তোলাবাজি ট্যাক্স দিতে হয়। TTT ট্যাক্স ‘তৃণমুল তোলাবাজি ট্যাক্স’ হিসেবে পরিচিত। এই রাজ্যের মানুষের মুখে মোদী মোদী নাম শোনা যাবে, এটা হতে দেবেন না দিদি, তাই এই সুবিধা থেকে মানুষকে বঞ্চিত করা হচ্ছে। যদি কেউ বলে যে হার্টের অপারেশন ফ্রিতে হয়েছে মোদীর যোজনার জন্য, রাজ্যের মানুষের মুখে মোদী নাম শুনলেই দিদির ঘুম উড়ে যাবে।