Tuesday, May 21, 2024
দেশ

উপত্যকায় অহিন্দু ধর্মগুলিকে গুরুত্ব দেওয়া হয় না: ওমর আবদুল্লা

শ্রীনগর: জম্মু-কাশ্মীরের সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠান এবং সাধারণ পাঠাগারে গীতা এবং রামায়ন রাখা বাধ্যতামূলক। এমনই নির্দেশিকা জারি করেছে জম্মু–কাশ্মীর সরকার। আর এই নিয়ে নতুন করে শুরু হয়েছে বিতর্ক। বিজেপির গৈরিকি করণের রাজনীতির বিরোধিতা শুরু করেছে অবিজেপি দলগুলি। বিশেষ করে সরব হয়েছে প্রতিবাদ জানিয়েছে এনসি-র নেতা এবং জম্মু কাশ্মীরের প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী ওমর আবদুল্লা।

টুইটে তিনি লিখেছেন, শুধু গীতা ও রামায়ন কেন? আবদুল্লা বলেন, যদি স্কুল, কলেজ, সরকারি লাইব্রেরিতে ধর্মীয় বই রাখা হয়, তা হলে বেছে বেছে কেন গীতা-রামায়ন। কেন অন্য ধর্মকে অবজ্ঞা করা হচ্ছে? দেশে তো অন্য ধর্মও রয়েছে। তাঁদের অস্তিত্বকে কেন অবহেলা করা হচ্ছে?‌ ওমর আবদুল্লা বলেন, আমি মনে করি না সব স্কুল-কলেজ-লাইব্রেরিতে ধর্মীয় পুস্তক রাখার প্রয়োজন আছে। কিন্তু যদি রাখতেই হয়, একটিমাত্র ধর্মের গ্রন্থ রাখা হবে কেন?

যদিও চাপের মুখে পড়ে স্কুল-কলেজ-লাইব্রেরির গীতা-রামায়নের বই কেনার নির্দেশিকা তুলে নিয়েছে জম্মু ও কাশ্মীরের প্রশাসন। রাজ্যের মুখ্য সচিব মঙ্গলবার একটি নির্দেশিকা জারি করে জানায়,  স্কুল-কলেজে ধর্মীয় বই কেনার বিষয়ে শিক্ষা দপ্তরে যে সার্কুলার জারি করেছিল, তা তুলে নেওয়া হচ্ছে।