Monday, June 24, 2024
দেশ

কুতুব শাহ নাম বদলে দেন, আমরা হায়দরাবাদের নাম বদলে ‘ভাগ্যনগর’ করে দেব: যোগী আদিত্যনাথ

হায়দরাবাদ: বিহার বিধানসভা ভোটে জয়লাভের পর গেরুয়া শিবিরের পরবর্তী টার্গেট হায়দরাবাদ মিউনিসিপাল কর্পোরেশনের ভোট। এই পুরভোটকে বিশেষ গুরুত্ব দিয়ে প্রচার শুরু করে দিয়েছে গেরুয়া শিবির। সম্প্রতি হাইটেক শহর হায়দরাবাদে প্রচারে যান বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি জেপি নাড্ডা। তিনি ফিরতে না ফিরতেই যান উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ।

যোগী আদিত্যনাথ হুঙ্কার দিয়ে বলেন, বিজেপি ক্ষমতায় এলে হায়দরাবাদের নাম বদলে ভাগ্যনগর (Bhagyanagar) করে দেওয়া হবে। তাঁর দাবি, হায়দরাবাদের নাম আগে ভাগ্যনগর ছিল। ১৫৯০ সালে কুতুব শাহ নাম বদলে হায়দরাবাদ রাখেন। আমরা সেই নাম বদলে আগের নাম রাখবো।

যোগী আদিত্যনাথ আরও বলেন, শুধু হায়দরাবাদ নয়, ক্ষমতায় এলে সেকেন্দ্রাবাদ ও করিমনগরের নামও বদলে দেব আমরা। উল্লেখ্য, বিজেপি উত্তরপ্রদেশে ক্ষমতায় এসে ফৈজাবাদকে অযোধ্যা এবং এলাহাবাদের নাম বদলে প্রয়াগরাজ করে দিয়েছে। তাই এবার ভোটে জিতলে হায়দরাবাদকে ভাগ্যনগর করেই দিতে পারে তাঁরা।

তেলেঙ্গনায় নিজেদের মাটি শক্ত করতে কৌশলে এগোচ্ছে গেরুয়া শিবির। সেরাজ্যে কংগ্রেস দুর্বল, চন্দ্রবাবু নাইডুর উপরও রাজ্যবাসী অসন্তুষ্ট। যদিও তেলেঙ্গনায় ক্ষমতায় থাকা টিআরএস যথেষ্ট শক্তিশালী, তবে নিজের গড়ে বিজেপি যদি আসাউদ্দিন ওয়াইসির দলকে মাত দিতে পারে তবে আগামী বিধানসভা ভোটে গেরুয়া শিবিরের শক্তি অনেকটাই বেড়ে যাবে। আর সেই দিকেই নজর দিয়ে এগোচ্ছে গেরুয়া শিবির।

তেলেঙ্গনায় চতুর্মুখী লড়াইয়ে রয়েছে শাসক দল টিআরএস, আসাউদ্দিনের মিম, কংগ্রেস। ওয়াকিবহল মহলের দাবি, আসল লড়াই হবে বিজেপির সঙ্গে মিমের। দক্ষিণে একমাত্র কর্ণাটক ছাড়া বিজেপির তেমন ভিত্তি নেই। তাই হায়দরাবাদের পুরো নির্বাচনে সর্বশক্তি দিয়ে ময়দানে নেমেছে গেরুয়া শিবির।