Monday, June 24, 2024
দেশ

‘রিলায়েন্সেকে আমরাই বেছে নিয়েছি’, রাহুলের দাবি উড়িয়ে জানালেন ড্যাসল্ট সিইও

প্যারিস: লোকসভা ভোটের আগে রাফাল চুক্তি নিয়ে মোদী সরকারকে বিঁধছে বিরোধীরা, তখন হঠাত্‍‌ মুখ খুললেন রাফায়েল যুদ্ধ বিমানের নির্মাণকারী সংস্থা ড্যাসল্ট অ্যাভিয়েশনের সিইও এরিক ট্রাপিয়ার। কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধীর দাবিকে মিথ্যে আখ্যা দিয়ে এরিকের বক্তব্য, সংস্থার সিইও মিথ্যা বলেন না। আমার মিথ্যে কথা বলার রেপুটেশন নেই। অনিল আম্বানিকে বেছে নেয় ড্যাসল্টই৷ এটি একটি যৌথ উদ্যোগ। টাকা সরাসরি অনিল আম্বানির সংস্থা পাবে না। রাফায়েলের দামে কোনও কারচুপি নেই।

সংবাদ সংস্থা এএনআইকে দেওয়া সাক্ষাৎকারে ফরাসি সংস্থা ড্যাসল্টের সিইও এরিক ট্র্যাপিয়ার জানিয়েছেন, রিলায়েন্সের মতই ড্যাসল্টের আরও ৩০টি কোম্পানির সঙ্গে পার্টনারশিপ র‌য়েছে। সংস্থার যে পদে আমি রয়েছি সেখানে মিথ্যে বলে পৌঁছনো যায় না। এবং মিথ্যে বলাও যায় না।

কংগ্রেস প্রধান রাহুল গান্ধী অভিযোগ করেছিলেন, অনিল আম্বানির সংস্থায় ড্যাসল্ট ২৮৪ কোটি টাকা লগ্নি করে। নাগপুরে জমির ব্যবস্থার জন্য। ড্যাসল্টের সিইও মিথ্যে কথা বলছেন। রাহুল গান্ধীর অভিযোগের জবাবে ট্রাপিয়া বলেছেন, কংগ্রেসের সঙ্গে আমাদের সম্পর্ক বহু পুরনো। ১৯৫৩ সালে প্রধানমন্ত্রী জওহরলাল নেহরু আমলে ভারতের সঙ্গে আমাদের প্রথম চুক্তি হয়েছিল। আমরা দীর্ঘ দিন ভারতের সঙ্গে কাজ করছি। কোনও দলের হয়ে কাজ করি না। ভারতীয় বায়ুসেনা ও সরকারকে যুদ্ধবিমান-সহ নানা স্ট্র্যাটেজিক প্রডাক্ট সাপ্লাই করি।

রাহুলের যাবতীয় অভিযোগ ধুলিসাৎ করে দিয়ে ড্যাসল্ট সিইও এরিক জানিয়েছেন, কোনও রকম আর্থিক লেনদেন এখনও পর্যন্ত রিলায়েন্সের সঙ্গে ড্যাসল্টের হয়নি। পুরোটাই যৌথ উদ্যোগে কাজে লাগানো হবে। যৌথ ভাবে অর্থ বিনিয়োগ করা হচ্ছে এই কাজে। কাজেই কিভাবে জিনিসটি তৈরি করা হবে তা যথেষ্ট স্পষ্ট আমাদের কাছে। প্রয়োজনে তাঁর সংস্থা হ্যালের সঙ্গেও কাজ করতে প্রস্তুত বলে জানিয়েছেন এরিক।