Monday, June 24, 2024
আন্তর্জাতিক

মোদী সরকারের বড় সাফল্য, পাক অধিকৃত কাশ্মীরকে ভারতের অংশ দেখাল চিন

বেজিং: পাক অধিকৃত কাশ্মীর পাকিস্তানের নয়, বরং ভারতের অভিন্ন অংশ। শেষপর্যন্ত মানতে বাধ্য হল চিন। পুরো কাশ্মীরকেই ভারতের অংশ হিসেবে দেখাল চিনের সরকারি সংবাদমাধ্যম। সাধারণত, পাক-অধিকৃত কাশ্মীরকে ভারতের মানচিত্রে দেখায় না পাকিস্থানের ‘বন্ধু’ চিন। এ নিয়ে ভারত অনেক বার প্রতিবাদ করলেও কোনও লাভ হয়নি। কিন্তু গত শুক্রবার আন্তর্জাতিক চিনা সংবাদমাধ্যম সিজিটিএন খবর সম্প্রচার করার সময় পাকিস্তানের মানচিত্রে পাক-অধিকৃত কাশ্মীরকে রাখেনি চিন।

গত ২৩ নভেম্বর করাচির চিনা দূতাবাসে হামলা চালায় পাক সন্ত্রাসীরা। হামলায় প্রাণ হারান দূতাবাসের নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকা বেশ কয়েকজন পুলিশকর্মী। সংবাদমাধ্যমে শুক্রবার এই খবরই বর্ণনা করছিল চিনের সরকারি চ্যানেল সিজিটিএন এবং তখনই পাক অধিকৃত কাশ্মীরকেও ভারতের অংশ হিসাবে দেখায় ওই সংবাদমাধ্যম।

কূটনীতিকরা মনে করছেন, জম্মু ও কাশ্মীরের মানচিত্রে এত বড় পরিবর্তন এনে চিন একটি কঠিন বার্তা দিল ‘বন্ধু’ দেশ পাকিস্তানকে। তাঁদের মতে, কাশ্মীর থেকে শুরু করে সন্ত্রাসবাদ ইস্যুতেও এতদিন পাকিস্তানের পাশে দাঁড়িয়েছে চিন। পাকিস্তান চিনের কাছাকাছি থাকার চেষ্টা করলেও এই ধরনের মানচিত্র ব্যবহার করায় দুই দেশের মধ্যে ঠাণ্ডা লড়াই যে একটা হচ্ছে তা নিয়ে কোনও সন্দেহ নেই। যদিও এ বিষয়ে এখনও পর্যন্ত সরকারি ভাবে পাকিস্তান এই মানচিত্র-বদল নিয়ে কোনও প্রতিক্রিয়া জানায়নি।

সূত্রের খবর, চিনা সরকারের অনুমোদন ছাড়া সিটিজিএন চ্যানেলে কোনও খবর সম্প্রচারিত হয় না। ফলে এটি চিনা সরকারের অনুমতি ছাড়া দেখানো হয়নি বলেই মনে করছে কূটনৈতিক মহল। কূটনৈতিক মহলের একাংশের মতে, এমনটা করে পাকিস্তানকে সতর্ক করেছে বেজিং। চিনা দূতাবাসে হামলায় চটে গিয়েছে চিন।