Monday, May 20, 2024
রাজ্য​

মমতাকে অস্বস্তিতে ফেলে বিজেপির ভূয়সী প্রশংসা করলেন তৃণমূল সাংসদ দেব

মেদিনীপুর: বুধবার ঘাটালে বিজয় সম্মিলনীর অনুষ্ঠানে যোগ দেন তৃণমূল সাংসদ তথা অভিনেতা দীপক অধিকারী দেব। বিজেপি নিয়ে প্রতিক্রিয়ায় সংবাদমাধ্যমকে তিনি বলেন, বিজেপি পাকিস্তানের কোনও সন্ত্রাসবাদী দল নয়। ভারতেরই একটি রাজনৈতিক দল যারা পশ্চিমবঙ্গে ক্ষমতায় আসতে চায়। ওদের নিয়ে কথা বলা যাবে না এমন নয়। মানুষ যাকে ভালোবাসে সেই রাজ্য চালাবে।

তবে এবারই প্রথম নয় এর আগেও তৃণমূল সাংসদ একাধিকবার কেন্দ্রের মোদী সরকারের ভূয়সী প্রশংসা করেছেন। নোটবাতিলের সময় মমতা ব্যন্দ্যোপাধ্যায় সহ সকল বিজেপি বিরোধী দলগুলি যখন মোদী-সরকারের তীব্র সমালোচনায় ডুবে ছিলেন ঠিক তখনই উল্টোপথে হেঁটেছিলেন দেব। নোটবন্দীর সময় দেব জানিয়েছিলেন, এটি একটি ভালো পদক্ষেপ এর ফলে সাধারণ মানুষের সাময়িক কষ্ট হলেও ভবিষ্যতে দারুণ উপকার হবে। এতে কালো টাকার বাড়বাড়ন্ত রোধ করা যাবে।

বর্তমান রাজনীতির পরিবর্তন হওয়া জরুরি বলে মনে করেন দেব। এদিন তিনি বলেন, আমি চাই দেশের ভালো হোক। রাজ্যের ভালো হোক। শান্তি চান সাধারণ মানুষ। কাদা ছোড়াছুড়ি নয়। এসবের ঊর্ধ্বে যেতে হবে। এই রাজনীতি ৭০ বছর ধরে চলছে। ইতিবাচক রাজনীতি চাই। আমরা তো কোনও পাকিস্তানের সন্ত্রাসবাদী নিয়ে কথা বলছি না। দুটি দল ক্ষমতায় আসতে চায়। এখানে তো সবাই শত্রু নয়। মানুষ যাকে চাইবে, সে দেশ চালাবে।

প্রসঙ্গত, ২০১৪ সালে তৃণমূলের টিকিটে প্রথমবার ঘাটল থেকে নির্বাচন লড়েন দেব। সেসময় ঘাটালে তাঁর প্রতিদ্বন্দ্বি ছিলেন সিপিএম নেতা সন্তোষ রানা। ঘাটালে নির্বাচনী প্রচার করার সময় রাজনৈতিক প্রতিদ্বন্দ্বির আমন্ত্রণে তাঁর বাড়িতে গিয়ে চা খেয়ে এসেছিলেন দেব। এককথায় যা ভারতীয় রাজনীতির জন্য নজির সৃষ্টিকারী। সেবার ঘাটাল থেকে বিপুল ভোটে জিতে সাংসদ হন দীপক অধিকারী।