Wednesday, July 24, 2024
দেশ

রোহিঙ্গা অনুপ্রবেশ রুখতে রাজ্যগুলিকে কড়া নির্দেশ দিল কেন্দ্র

নয়াদিল্লি: সম্প্রতি অসম থেকে ১৫ জন রোহিঙ্গাকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। শনিবার বাংলাদেশ সীমান্ত লাগোয়া অসমের করিমপুরের রেল স্টেশন থেকে গ্রেপ্তার করা হয় তাদের। বাংলাদেশ থেকে সীমান্ত পেরিয়ে ভারতে অবৈধভাবে গত এক যুগ ধরে বসবাস করে আসছিল তারা। মঙ্গলবার সংসদে ফের রোহিঙ্গা অনুপ্রবেশকারী নিয়ে আলোচনা হয়। কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক জানিয়েছে, রোহিঙ্গা অনুপ্রবেশকারীরা জাতীয় নিরাপত্তার পক্ষে বিপদজনক।

এদিন কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রকের তরফে সংসদে লিখিত আকারে জানানো হয়, মায়ানমার থেকে অনুপ্রবেশকারী রোহিঙ্গাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিক রাজ্যগুলি। মণিপুর, মিজোরাম, অরুণাচল প্রদেশ এবং নাগাল্যান্ডের রাজ্য সরকারকে রোহিঙ্গাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়ার নির্দেশ দেয় কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রক।

গোয়েন্দা রিপোর্টে বলা হয়েছে, রোহিঙ্গাদের সঙ্গে অনেক জঙ্গি ভারতে প্রবেশ করেছে। সরকারি হিসেব অনুযায়ী, ভারতে ৪০ হাজার রোহিঙ্গা প্রবেশ করেছে বলেও জানানো হয়।

কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী নিত্যানন্দ রাই বলেন, রোহিঙ্গা অনুপ্রবেশকারীদের বিরুদ্ধে আইন অনুযায়ী ব্যবস্থা নেয়া হবে। প্রসঙ্গত বলে রাখি, রাষ্ট্রপুঞ্জের শরণার্থী পুনর্বাসন সভার সদস্য হয়নি ভারত। তাই রোহিঙ্গাদের ফেরত পাঠালে ভারতের বিরুদ্ধে কোনো ব্যবস্থা নিতে পারবে না রাষ্ট্রপুঞ্জ।

পাশাপাশি এদিন জাতীয় নাগরিকত্ব আইন নিয়েও সংসদে আলোচনা করা হয়। কংগ্রেস সাংসদ গৌরব গগৈ কেন্দ্রীয় সরকারের কাছে জানতে চান, জাতীয় নাগরিকত্ব আইনের কাজ কতদূর এগুলো, নিয়ম-নীতি কবে প্রকাশ্যে আনা হবে। জবাবে নিত্যানন্দ রাই (Nityanand Rai) বলেন, নিয়ম-নীতি প্রস্তুত করতে আরো ছয় মাস লাগবে। ২০২২ সালের জানুয়ারির ৯ তারিখ পর্যন্ত সময় চেয়ে নেন তিনি।