Sunday, July 21, 2024
রাজ্য​

শেষবেলায় যোগীর সভায় অনুমতি না মেলায় বিক্ষোভ বিজেপির

বালুরঘাট: লোকসভা নির্বাচনের দিন যত এগোচ্ছে, তৃণমূল-বিজেপি সংঘাত যেন ততই তেঁতে উঠছে। বিজেপি সভাপতি অমিত শাহের পর এবার তৃণমূল সরকারের বাধার মুখে পড়লেন উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রী যোগী আদিত্যনাথ। রবিবার রাজ্যে যোগীর সভার অনুমতি দিল না রাজ্য সরকার।

সংবাদসংস্থা এএনআই সূত্রে খবর, রবিবার বালুরঘাট ও রায়গঞ্জে সভা করার কথা যোগীর। কিন্তু কোনও কারণ ছাড়াই হঠাৎই উত্তরপ্রদেশের মুখ্যমন্ত্রীর সভাকে মমতা সরকার ছাড়পত্র দিল না বলে অভিযোগ উঠেছে। রায়গঞ্জ থেকে গাড়িতে যোগীকে বালুরঘাট আনার পরিকল্পনাও করা হয়। কিন্তু শেষপর্যন্ত স্থির হয়, মোবাইলের মাধ্যমে বালুরঘাটের সমাবেশে ভাষণ দেবেন যোগী আদিত্যনাথ। তবে রায়গঞ্জের সভায় উপস্থিত থাকবেন আদিত্যনাথ।

জানা যাচ্ছে, কপ্টার জটে দক্ষিণ দিনাজপুরের বালুরঘাটের সভায় আসতে পারছে না যোগী আদিত্যনাথ। মোবাইলের লাউড স্পিকারের মাধ্যমে বালুরঘাটে ভাষণ দেবেন তিনি। প্রশাসনিক অনুমতি না মেলায় এদিন সকাল থেকেই জেলাশাসকের বাংলো ঘেরাও করে বিক্ষোভ দেখাতে শুরু করেন বিজেপি কর্মী, সমর্থকরা।

শনিবার থেকে ফের মাথাচাড়া দিয়ে ওঠে কপ্টার বিতর্ক। বালুরঘাটে কপ্টার নামার প্রশাসনিক অনুমতি না মেলায় শনিবার দিনভর টানাপোড়েন চলে। রাতেই কাটিহার ডিভিশনের ডিআরএমের অনুমতি নিয়ে জনসভার পাশে হেলিপ্যাড তৈরির কাজ শেষ হয়। কিন্তু তারপরেও এদিন সকাল পর্যন্ত মেলেনি অনুমতি।

এ বিষয়ে মমতাকে বিঁধে যোগী আদিত্যনাথের তথ্য উপদেষ্টা মৃত্যুঞ্জয় কুমার সংবাদসংস্থা এএনআইকে বলেন, যোগী আদিত্যনাথের জনপ্রিয়তার জন্যই মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় আমাদের চপারকে নামতে দিলেন না।

প্রসঙ্গত, লোকসভা নির্বাচনে এবার এ বাংলাকে কার্যত পাখির চোখ করেছেন মোদী-শাহরা। লোকসভা নির্বাচনের আগে আগামী ৮ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত ২০০টি জনসভা করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে গেরুয়াবাহিনী। সেই সভারই অংশ হিসেবে এদিন বালুরঘাট ও রায়গঞ্জে সভা করার কথা যোগীর।