Wednesday, July 24, 2024
দেশ

সপ্তম বেতন কমিশনের সিদ্ধান্ত ঐতিহাসিক: প্রতিমা ভৌমিক

আগরতলা: ত্রিপুরায় বিজেপি আইপিএফটি জোট সরকার মঙ্গলবার প্রাক নির্বাচনী প্রতিশ্রুতি মোতাবেক সপ্তম বেতন কমিশন লাগু করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে। কর্মচারীদের ওপর দীর্ঘ বঞ্চনার ইতি টেনেছে প্রগতিশীল, উন্নয়নকামী ও জনদরদী ত্রিপুরায় বিজেপি সরকার। বুধবার সংবাদ সম্মেলনে একথা বলেন পার্টির রাজ্য সাধারণ সম্পাদিকা প্রতিমা ভৌমিক। তাঁর কথায়, প্রতিকূল পরিস্থিতিতে সপ্তম বেতন কমিশনের সিদ্ধান্ত ঐতিহাসিক। এই সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানায় রাজ্য বিজেপি।

প্রতিমা ভৌমিক বলেন, বিধানসভা নির্বাচনের আগে বিজেপি রাজ্যবাসীর কাছে একগুচ্ছ প্রতিশ্রুতি দিয়েছিল। জনগণের বিশ্বাস অর্জনে সমর্থ হয়ে সরকার গঠনের পর প্রথম মন্ত্রিসভার বৈঠকেই রাজ্যের সরকারি কর্মচারীদের সপ্তম বেতন কমিশনের সুবিধা প্রদানের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়। তা বাস্তবায়নের জন্য কমিশন গঠনের ঘোষণাও করা হয়েছিল।

যদিও রাজ্যের সরকারি কর্মচারীদের বঞ্চনাকে চিরস্থায়ী করতে মানিক সরকার বহু জটিলতার সৃষ্টি করে রেখেছিল। হচ্ছে হবে দেখছি দেখব বলে দীর্ঘ ২৫ বছর ধরে রাজ্যের সরকারি কর্মচারীদের এই কথাগুলোই বলে আসছিলেন মানিক সরকারের নেতৃত্বে তৎকালীন বামফ্রন্ট সরকার। সপ্তম বেতন কমিশন দেওয়া তো দূরের কথা এত বছর ধরে বাম সরকারের আমলে কর্মচারীদের প্রতিশ্রুতি আর কেন্দ্রের বঞ্চনার গল্প শুনিয়ে ছিলেন মানিক সরকার ও তার মন্ত্রীসভার সদস্যরা। প্রতিশ্রুতি শুধুই প্রতিশ্রুতি। প্রতিশ্রুতিটা বাস্তবে পরিণত করার মানসিকতা কোনোদিনই ছিলোনা বাম সরকারের মন্ত্রীদের। কিন্তু মানিক সরকার যেটা করতে পারেননি রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব দেব সেটা মাত্র ৭ মাসের মধ্যে করে দেখিয়ে দিলেন বলে জানান প্রতিমা ভৌমিক।

প্রতিমা ভৌমিক বলেন, এই ঐতিহাসিক সিদ্ধান্তকে স্বাগত জানাচ্ছে ভারতীয় জনতা পার্টি। পার্টি নেতৃত্ব সরকারের এই সিদ্ধান্তের জন্য মুখ্যমন্ত্রী বিপ্লব কুমার দেব এবং মন্ত্রিসভার সকল সদস্যকে অভিনন্দন জানাচ্ছে। তিনি বলেন, সরকারি কর্মচারীদের পে কমিশন ঘোষণার মাধ্যমে প্রমাণ হল বিজেপি যে প্রতিশ্রুতি দেয় তার খেলাপ করে না, অক্ষরে অক্ষরে পালন করে।