Tuesday, July 16, 2024
দেশ

মুখবন্ধ খামে সুপ্রিম কোর্টে রাফায়েল সংক্রান্ত তথ্য জমা দিল কেন্দ্র

নয়াদিল্লি: ফরাসি সংস্থা দাসোর থেকে ৩৬টি রাফায়েল যুদ্ধবিমান কেনাবেচার পদ্ধতিগত বিষয় এবং দামসংক্রান্ত তথ্য সুপ্রিম কোর্টে জমা দিল কেন্দ্র। কেন্দ্রকে এই তথ্যাদি জমা দেওয়ার নির্দেশ দিয়েছিল শীর্ষ আদালত। এই মামলার পরবর্তী শুনানির দিন ধার্য হয়েছে আগামী বুধবার।

রাফায়েল চুক্তি নিয়ে দেশ জুড়ে রাজনৈতিক তরজা চলছে। যুদ্ধবিমান কেনাবেচায় দুর্নীতির অভিযোগ উঠেছে। একই সঙ্গে উঠেছে এই অভিযোগও যে চুক্তির বাস্তবায়ন হয়েছে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর খেয়াল-খুশিমতো। সঠিক পদ্ধতি মানা হয়নি। যদিও সুপ্রিম কোর্টের নির্দেশে পদ্ধতিগত বিষয়ে পেশ করা হলফনামায় কেন্দ্রীয় সরকার জানিয়েছে, ২০১৩ সালে এই বিষয়ে যে পদ্ধতি স্থির হয়েছিল, এই চুক্তির ক্ষেত্রেও তা মানা হয়েছে।

সূত্রের খবর, সোমবার বন্ধ খামে রাফায়েল চুক্তি সংক্রান্ত যে ১৬ পাতার নথি জমা দিয়েছে কেন্দ্র, তাতে বলা হয়েছে, ওই চুক্তি নিয়ে দর কষাকষি চলে একবছর ধরে। সে জন্য একটি বিশেষ দলও গঠন করা হয়েছিল। দর কষাকষির পর ২০১৬ সালের ৪ অাগস্ট একটি রিপোর্ট জমা দেয় ওই কমিটি। অর্থ এবং আইন মন্ত্রক ২০ দিনের মধ্যে সেই রিপোর্ট পর্যালোচনা করেও দেখে। এরপর সেই রিপোর্ট যায় মন্ত্রিপরিষদের নিরাপত্তা কমিটি এবং প্রতিরক্ষা দফতরের অস্ত্র কেনার দায়িত্বে থাকা কাউন্সিলের হাতে। ২৪ অাগস্ট তাঁদের তরফে ওই চুক্তিতে সায় মেলে।

কংগ্রেসসহ বিরোধীদের অভিযোগ, কংগ্রেস আমলের খসড়া চুক্তি অগ্রাহ্য করে অনেক বেশি দামে অনেক কম যুদ্ধবিমান কেনার জন্য চুক্তিবদ্ধ হয়েছে ভারত। কংগ্রেসের করা চুক্তি মানলে ৭৯ কোটি রুপিতে পাওয়া যেত ১২৬টি রাফাল। সে জায়গায় ৫৯ হাজার কোটি রুপিতে মোদি সরকার কিনছে মাত্র ৩৬টি।