Sunday, July 21, 2024
রাজ্য​

মমতাকে ‘গান্ধারী’র সঙ্গে তুলনা করলেন অধীর

কলকাতা: ফের তৃণমূল সুপ্রিমো তথা রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে আক্রমণ করলেন প্রাক্তন প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি তথা বহরমপুরের সাংসদ অধীর চৌধুরী। মুখ্যমন্ত্রী কথা তুলে তিনি বলেন, দিদি নিজেই বলছেন সবই জানেন, তবু কিছু বলেন না কেন ভাইদের। কারণ ‘দিদি’র দলে টাকা না তোলা লোক খুঁজতে গেলে অণুবীক্ষণ যন্ত্র লাগাতে হবে। মমতাকে উদ্দেশ্য করে অধীরের তোপ, আপনার দল আর প্রশাসন মিলে টাকা লুঠ করছে। আপনি দেখেও দেখছেন না।

নিজের হোয়াটস গ্রুপে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়ের উদ্দেশ্যে অধীর চৌধুরী লিখেছেন, আপনার পার্টি আর প্রশাসন মিলেমিশে টাকা লুঠ করছে, আর আপনি ‘অন্ধ গান্ধারী’? যখন মনে হবে চোখ খুলবেন আর মনে হলে চোখ বন্ধ করে রাখবেন। এই তো কয়েকদিন আগেই নেতাজি ইন্ডোর স্টেডিয়ামে তিনি নিজেই বলেন, কে কোথা থেকে টাকা তোলে, সব খবর দিদির কাছে আছে।

অধীর চৌধুরী বলেন, কোথা থেকে টাকা তোলা হয়, কে টাকা তোলে, দিদি সবই জানেন। কারণ এটা বলা অত্যন্ত সহজ। তাঁর কথায়, দিদির দলে টাকা না তোলা লোক খুঁজতে গেলে অনুবীক্ষণ যন্ত্র লাগবে। আদতে সবাই তো টাকা তোলেন। এদিন সিবিআই ইস্যুতেও মমতাকে ছাড়েননি অধীর। তিনি বলেন, দিদির মুখে সারাজীবন বাংলার মানুষ শুনেছে সিবিআই চাই। এখন পাল্টি খেয়ে দিদি বলছেন, সিবিআই কো টাটা বাই বাই। বাংলায় কোন ঘটনায় সিবিআই ভুল ও অন্যায় করেছে? আমার জানতে ইচ্ছে করে। বরং সিবিআই বাংলায় সক্রিয় হলে চিটফান্ড কেলেঙ্কারিতে জড়িতদের শাস্তি হত ও টাকা ফেরতের ব্যবস্থা হত বলে জানান অধীর চৌধুরী।

উল্লেখ্য, অন্ধ্রপ্রদেশে চন্দ্রবাবু নাইডু সরকারের পথে হেঁটে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় জানিয়ে দিয়েছেন, রাজ্য সরকারের অনুমতি ছাড়া সিবিআই প্রবেশ করতে পারবে না বাংলায়।